আজ: মঙ্গলবার | ২৬ অক্টোবর, ২০২১ | ১০ কার্তিক, ১৪২৮ | ১৯ রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ | বিকাল ৩:৪৮

সংবাদ দেখার জন্য ধন্যবাদ

Home » সারাদেশ » চট্টগ্রাম বিভাগ » কুমিল্লা » কুমিল্লায় কাভার্ডভ্যানচাপায় নিহত ২

রূপগঞ্জে ৭ ডাকাত গ্রেফতার

০২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ | ১২:২২ অপরাহ্ণ | বাংলাদেশ বার্তা | 1066 Views

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার পূর্বাচল উপশহর এলাকায় সৌদি প্রবাসীর গাড়িতে সংঘটিত ডাকাতি মামলার ৭ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সকালে তাদের গ্রেফতার করা হয়।


গ্রেফতারকৃতরা হলো, পটুয়াখালী জেলার নয়াবাঙ্গগুনি গ্রামের রিয়াজউদ্দিনের ছেলে তানজিদ হোসেন (২১), বরিশাল জেলার কাজিরহাট থানার কাদিরাবাদ গ্রামের স্বপন শেখের ছেলে সজল (২০), আঙ্গারমানিক এলাকার ছামসুল হক খলিফার ছেলে সোহাগ হোসেন (২৩) মোলাদি থানার আলিমাবাদ এলাকার শওকত হোসেনের ছেলে মিরাজ হোসেন (২৮), শরিয়তপুর জেলার সখিপুর থানার মোল্লাবাজার প্যাদাকান্দি গ্রামের মৃত নুর হোসেন খানের ছেলে সোহরাব খান (২৮), পটুয়াখালি জেলার বাউফল থানার কাশিপুর গ্রামের মোঃ রফিক ফকিরের ছেলে বাবলু (১৯), বরগুনা জেলার বরগুনা সদর থানার খাজুরতলা গ্রামের আবু তাহেরের ছেলে রাসেল (২৫)।

পুলিশ জানায়, ঢাকা-কাঞ্চন-নরসিংদী সড়কের পূর্বাচল উপশহরের ৭নং সেক্টর এলাকায় গত ৩০ আগষ্ট মঙ্গলবার শেষ রাত পৌনে ৩টায় সৌদি প্রবাসী সাইফুল ইসলামের গাড়িতে ডাকাতি সংঘটিত হয়। তিনি শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর থেকে নরসিংদী জেলার মনোহরদী থানার বাগিবাড়ি গ্রামের বাড়িতে যাওয়ার সময় সাইফুল ইসলাম ডাকাতদের কবলে পড়েন। অপর একটি পিকআপ ভ্যানে মাইক্রোবাসের গতিরোধ করে। এসময় অস্ত্রের মুখে সাইফুল ইসলাম, তার মামা সেলিম মিয়া ও গাড়ি চালক স্বপন মিয়াকে জিম্মি করে মাইক্রোবাসের মালামাল ডাকাতরা লুটপাট করে।

ডাকাতরা নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, সৌদি রিয়াল, মোবাইল সেট সহ দুই লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুটপাট করে নিয়ে যায়। ডাকাতদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আহত মাইক্রোবাস চালক স্বপন মিয়া ও সৌদি প্রবাসী সাইফুল ইসলামকে রূপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

রূপগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এএফএম সায়েদ বলেন, সৌদি প্রবাসী সাইফুল ইসলামের পিতা সুরুজ আলী বাদী হয়ে ৭ জনকে আসামি করে রূপগঞ্জ থানায় ডাকাতি মামলা দায়ের করেছেন। গ্রেফতারকৃতদের নারায়ণগঞ্জ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।



Comment Heare

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this: